রবিবার, ২রা অক্টোবর ২০২২, ১৬ই আশ্বিন ১৪২৯


বৃষ্টিতে জলজট ও যানজট

রাজধানীর জলাবদ্ধতায় দুর্ভোগ চরমে


প্রকাশিত:
১৫ সেপ্টেম্বর ২০২২ ১৬:৪৯

আপডেট:
২ অক্টোবর ২০২২ ০২:০৩

 ছবি : সংগৃহীত

মঙ্গলবার (১৩ সেপ্টেম্বর) প্রচণ্ড যানজটের কবলে পড়ে চরম দুর্ভোগ পোহাতে হয়েছে রাজধানীবাসীদের। বিআরটি প্রকল্পের ব্যর্থতাই মূলত দায়ী এ যানজটের জন্য। এ প্রকল্পের ব্যর্থতার কারণে খানাখন্দে ভরা জয়দেবপুর থেকে আব্দুল্লাহপুর সড়কে জলজট দেখা দেয়। এ কারণে ওই সড়কে গাড়ি চলাচল এক প্রকার বন্ধ হয়ে যায়। এতে ঢাকার সঙ্গে যোগাযোগ স্থবির হয়ে পড়ে।

এর ফলে সকাল থেকে গাজীপুর ও রাজধানী ঢাকায় যানজটের সৃষ্টি হয়। এ ছাড়া রাজধানীর ভাঙাচোরা ও গর্তে ভরা সড়কেও জলজটের কারণে যানবাহনের গতি কমে যায়। একদিকে ঢাকা-ময়মনসিংহ হাইওয়ে, অন্যদিকে প্রগতি সরণির এয়ারপোর্টমুখী সড়ক ছিল স্থবির। ঢাকা-ময়মনসিংহ রোডের যানজটের প্রভাব পড়েছে মিরপুর ইসিবি চত্বর পর্যন্ত।

মতিঝিল থেকে মালিবাগ, রামপুরা, বাড্ডা, শাহজাদপুর, কুড়িল হয়ে এয়ারপোর্ট রোড ছিল স্থবির। এতে দিনভর নগরবাসীকে চরম দুর্ভোগ পোহাতে হয়েছে। ঘণ্টার পর ঘণ্টা যানবাহনে বসে থাকার পর গন্তব্যে পৌঁছেছেন নগরবাসী। অনেকে গুঁড়ি গুঁড়ি বৃষ্টির মধ্যেই হেঁটে পৌঁছান গন্তব্যে। সকালে যানজটের প্রকোপ টঙ্গী, আব্দুল্লাহপুর, বিমানবন্দর ও মিরপুরের কালশি এলাকায় থাকলেও সময় বাড়ার সঙ্গে সঙ্গে তা বিস্তৃত হয়েছে চতুর্দিকে।

এর প্রভাব ছিল দিনভর। ভয়াবহ যানজটের কারণে খুব প্রয়োজন নেই এমন অনেকে ফিরে গেছেন বাসায়। সুযোগ বুঝে সিএনজিচালিত অটোরিকশা, রিকশা ও মোটরবাইকের রাইডশেয়ারিংয়ের চালকরা যাত্রীদের কাছ থেকে দ্বিগুণ থেকে পাঁচগুণ অতিরিক্ত ভাড়া আদায় করেছেন।

বঙ্গোপসাগরে নিম্নচাপের কারণে কয়েকদিন ধরেই রাজধানীতে বৃষ্টি হচ্ছে। মঙ্গলবার (১৩ সেপ্টেম্বর) ভোর থেকেই ঝুম বৃষ্টি হওয়ায় সৃষ্টি হয়েছে জলাবদ্ধতা। রাজধানীতে এমনিতেই যানজট প্রাত্যহিক ঘটনা। এর সঙ্গে জলাবদ্ধতা যুক্ত হয়ে তা আরও তীব্র হয়েছে। রাজধানীর জলাবদ্ধতা দূর করার লক্ষ্যে গত এক দশকের বেশি সময় থেকে সেবা সংস্থাগুলো খাল, ড্রেনেজ, নর্দমা পরিষ্কার ও উন্নয়নের নামে হাজার হাজার কোটি টাকা খরচ করেছে।

অথচ জলাবদ্ধতার দুর্ভোগ থেকে মুক্তি পায়নি রাজধানীবাসী। দেখা যাচ্ছে, অল্প সময়ের বৃষ্টিতেই রাজধানীতে জলজট সৃষ্টি হয়। প্রশ্ন দেখা দিয়েছে, এ সমস্যা থেকে কি মুক্তির কোনো উপায় নেই?

রাজধানীর জলাবদ্ধতার কারণগুলো চিহ্নিত করে এখন দরকার সমস্যা সমাধানে কার্যকর ব্যবস্থা গ্রহণ করা। বস্তুত বিভিন্ন সংস্থার সমন্বিত পদক্ষেপের অভাবেই রাজধানীর জলাবদ্ধতা দূর হচ্ছে না। এ সমস্যার সমাধানে প্রথমে রাজধানীর খালগুলো দখলমুক্ত করা জরুরি।



আপনার মূল্যবান মতামত দিন:


রিসোর্সফুল পল্টন সিটি (১১ তলা) ৫১-৫১/এ, পুরানা পল্টন, ঢাকা-১০০০।
মোবাইল: ০১৭১১-৯৫০৫৬২, ০১৯১২-১৬৩৮২২
ইমেইল : editordailymail@gmail.com, newsroom.dailymail@gmail.com
সম্পাদক: মো. জেহাদ হোসেন চৌধুরী

রংধনু মিডিয়া লিমিটেড এর একটি প্রতিষ্ঠান।

Developed with by
Top