শনিবার, ২৪শে ফেব্রুয়ারি ২০২৪, ১২ই ফাল্গুন ১৪৩০


রেকর্ড শতকের পেছনের রহস্য জানালেন হোপ


প্রকাশিত:
৪ ডিসেম্বর ২০২৩ ১২:১৮

আপডেট:
২৪ ফেব্রুয়ারি ২০২৪ ২৩:০০

ছবি-সংগৃহীত

২০১৯ বিশ্বকাপে চ্যাম্পিয়ন হওয়ার পর থেকেই ওয়ানডেতে নিজেদের অনন্য উচ্চতায় নিয়ে গিয়েছিল ইংল্যান্ড। তবে প্রথমবারের মতো বিশ্ব চ্যাম্পিয়ন হওয়ার পর এবারের বিশ্বকাপে তা ধরে রাখার মিশনে এসে চরম ভাবে ব্যর্থ হয়েছে ইংলিশরা। দশ দলের লড়াইয়ে আট নম্বর স্থানে থেকে ভারত বিশ্বকাপ শেষ করেছে জস বাটলারের দল। তবে বিশ্বকাপ ব্যর্থতা ভুলে নতুন শুরুর লক্ষ্যে মাঠে নেমেও হতাশা উপহার দিয়েছে ইংল্যান্ড। ক্যারিবিয়ানদের বিপক্ষে ওয়ানডে সিরিজের প্রথম ম্যাচে ৩২৬ রানের বড় লক্ষ্য দিয়েও হারের মুখ দেখল থ্রি লায়ন্সরা। অ্যান্টিগায় সাই হোপের দুর্দান্ত শতকে রেকর্ড গড়ে ৪ উইকেটের জয় পেয়েছে ওয়েস্ট ইন্ডিজ।

অধিনায়ক শাই হোপের ৮৩ বলে ১০৯ রানের শতকে রেকর্ড গড়া জয় তুলে নিয়েছে ক্যারিবিয়ানরা। তবে ম্যাচ শেষে ইংল্যান্ড-ওয়েস্ট ইন্ডিজের লড়াইয়ে উঠে এসেছেন ভারতীয় কিংবদন্তি মাহেন্দ্র সিং ধোনির নাম। ম্যাচসেরা হোপ জানিয়েছেন তাঁর অনুপ্রেরণা ছিল ধোনির সঙ্গে হওয়া অনেক দিন আগের এক কথোপকথন।

পুরস্কার বিতরণীতে এসে ক্যারিবিয়ান অধিনায়ক বলেন, ‘খুব, খুব বিখ্যাত একজন ব্যক্তি এম এস (মহেন্দ্র সিং) ধোনি। অনেক দিন আগে আমাদের কথা হয়েছিল। সে বলছিল, “তুমি যা ভাবছ, সব সময়ই তার চেয়ে বেশি সময় পাবে।” যত দিন ধরে ওয়ানডে ক্রিকেট খেলছি, ওই একটা ব্যাপার আমার সঙ্গে থেকে গেছে।’

এক পর্যায়ে ৩৯ তম ওভারে দলের বিপর্যয় বাড়িয়ে ২১৩ রানে পঞ্চম উইকেটের পতন ঘটলে স্বাগতিকরা ম্যাচ থেকে এক প্রকার ছিটকে যায়। কিন্তু সেখান থেকে রমারিও শেফার্ডকে সঙ্গে নিয়ে দলের জয়ের ভীত গড়েন হোপ।


ম্যাচে শেষের হোপ ক্রিকেট ওয়েস্ট ইন্ডিজকে বলেছেন, ‘মাঠের যে আকৃতি, সঙ্গে বাতাসের প্রভাব—আমি মনে করেছি ওই ওভারটিকেই তাক করা দরকার। আমরা জানতাম, অন্য প্রান্ত থেকে রান করা কঠিন হবে, বিশেষত বাতাসের বিপক্ষে। যা-ই ঘটুক না কেন, আমি শেষের আগের ওভারেই আক্রমণ করতে চেয়েছি, যাতে জয়ের সেরা সুযোগটি পাই।’

শেষ ২ ওভারে ওয়েস্ট ইন্ডিজের দরকার ছিল ১৯ রান। কারেনের প্রথম ৪ বলের মধ্যে হোপ মারেন দুটি ছক্কা, এর মধ্যে দ্বিতীয়টিতে শতকও পূর্ণ করেন। হোপ বলেছেন, তিনি নিজেই ‘শেষ’ করে আসতে চেয়েছেন, ‘দ্বিতীয়টির (৪৯তম ওভারের দ্বিতীয় ছক্কা) পরই জানতাম, আমরা ম্যাচ নিজেদের দিকে নিয়ে এসেছি। যদি ম্যাচ শেষ করতে ওই ওভারই থাকত, তাহলে আমি পারলে ১ ওভার বাকি রেখেই শেষ করতাম। অন্য কারও ওপর ছেড়ে দিতে চাইতাম না, শেষে গিয়ে শেষ করাই লক্ষ্য ছিল।’



আপনার মূল্যবান মতামত দিন:


রিসোর্সফুল পল্টন সিটি (১১ তলা) ৫১-৫১/এ, পুরানা পল্টন, ঢাকা-১০০০।
মোবাইল: ০১৭১১-৯৫০৫৬২, ০১৯১২-১৬৩৮২২
ইমেইল : [email protected], [email protected]
সম্পাদক: মো. জেহাদ হোসেন চৌধুরী

রংধনু মিডিয়া লিমিটেড এর একটি প্রতিষ্ঠান।

Developed with by
Top